বর্ণাঢ্য আয়োজনে মাধবদীতে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বর্ষবরণ

0
39

স্টাফ রিপোর্টার: পুরাতন জড়াজীর্ণতাকে পিছনে ফেলে নূতনের আহবানে সিক্ত হতে বরাবরের মতো শিল্প শহর মাধবদীতে বর্ণাঢ্য আয়োজনে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের বর্ষবরণ ছিলো জমকালো। সরকারি এবং পঞ্জিকামতে বৈশাখের ১ ও ২ তারিখ বিভিন্ন সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠন, সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে বাংলা নববর্ষের প্রথম দিনটি পালনে ব্যাপক আয়োজন ছিলো চোখে পড়ার মতো। বছরের প্রথম দিনের প্রভাতে ষোলআনা বাঙালিপনায় মত্ত মাধবদীর বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান আলাদা আলাদাভাবে বর্ষবরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এর মধ্যে বর্ণিল সাজের নারী পুরুষ, শিশুদের আনন্দ উল্লাসের বহি:প্রকাশ ঘর থেকে আঙিনা, আঙিনা থেকে শহরের অলিগলি এমন কি মাধবদীর তাঁতবস্ত্র মেলায়ও এর প্রভাব পড়ে।
প্রতিবারের মতো মাধবদীতে অবস্থিত নরসিংদী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি -১ এর বর্ষবরণ অনুষ্ঠানও ছিলো মনে রাখার মতো। বছরের প্রথম দিনের প্রভাতে প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা, কর্মচারী, সমিতি বোর্ডেও সদস্য ও অতিথিদের নিয়ে বর্ষবরণের অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন জেনারেল ম্যানেজার জনাব মিজানুর রহমান। সহকর্মীদের সাথে নূতন বছরের আনন্দ ভাগাভাগিতে খোলা মাঠে বিভিন্ন ভর্তার সাথে পান্তা ইলিশ নববর্ষের আনন্দে অন্যরকম মাত্রা যোগ করে। এ সময় মাধবদী জোনাল অফিসের ডিজিএম, ঘোড়াশাল জোনাল অফিসের ডিজিএম, ডিজিএম (কারিগরি)সহ প্রতিষ্ঠানের উধ্বতন কর্মকর্তাগণও উপস্থিত ছিলেন।
‘বন্ধুত্বের বাধঁন অটুট হোক’ এ শ্লোগানকে প্রতিপাদ্য করে মাধবদীর তারুণ্যের সংগঠন মাধবদী ফে-স এসোসিয়েশনের বর্ষবরণ অনুষ্ঠান পুরো শহরকে রঙিন করে তোলে । বছরের প্রথম দিনে ৫২ সদস্যের এ সংগঠন একই রকম পাঞ্জাবী পরে রাইন ওকে মার্কেস্থ নিজস্ব কার্যালয়ে বর্ষবরণ অনুষ্ঠান পালন করে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন শ্রম অধিদপ্তরের পরিচালক মোস্তফা আজিজুল করিম, সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের উপদেষ্ঠা শেখ রোম্মন।
নবধারার সংগঠন মাধাবদী ক্লাব লি: বর্ষবরণ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন প্রতিবারের মতোই বোরহান মার্কেটস্থ তাদের নিজস্ব কার্যালয়ে। তাদের আয়োজনের মধ্যে ছিলো সকল সদস্যদের একই রঙের পাঞ্জাবী পরিধান, পান্তা ইলিশ এবং দিন ব্যাপী বাউল গান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ক্লাবের সভাপতি জনাব আল আমীন প্রধান।
এছাড়াও পঞ্জিকামতে মাধাবদী অঞ্চলের সনাতন ধর্মালম্বীরা বাংলা নববর্ষ পালন করে বছরের দ্বিতীয় দিন বর্ণিল আয়োজনে। দিনটি উপলক্ষে অনেক সনাতন ধর্মলম্বী ব্যবসায়ীদের হালখাতার অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। নানা রকমের খাবারের পাশাপাশি পাড়া প্রতিবেশীদের মাঝে বড় মাছ, মিষ্টি বিতরণ করা হয়। ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকেও বর্ণিল সাজে সজ্জিত করা হয় ।
ঊংলা নববর্ষে সকলের একই অঙ্গিকার, অসুরের বিনাশ হয়ে শুভবোধের জাগ্রত হোক সবার মনে। সকলের প্রত্যাশা ১৪২৬ বঙ্গাব্দ সবার জন্য কল্যাণকর হোক।

117 total views, 3 views today

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here