বেলাব প্রতিনিধি: নরসিংদীর বেলাবতে হান্নান মিয়া (১৯) নামে এক লম্পটের বিরুদ্ধে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ২ বছর ধরে দশম শ্রেণীর এক ছাত্রীকে ধর্ষনের অভিযোগ উঠেছে। উপজেলার বিন্নাবাইদ ইউনিয়নের জালুকান্দা গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে। বৃহস্পতিবার এ ঘটনায় ধর্ষক হান্নানকে আসামী করে নির্যাতনের শিকার ছাত্রীর বাবা আ. সাত্তার বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনের ৯(১১) ধারায় বেলাব থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলা নং ১২(০৫)১৯। নির্যাতিতা মেয়েটির মেডিক্যাল পরীক্ষা করার জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেছে থানা পুলিশ।
নির্যাতিনের শিকার মেয়েটির পরিবার ও এলাকাবাসি সূত্রে জানা যায়, জালুকান্দা গ্রামের প্রবাসী রবিউলের বখাটে ছেলে কাশিমনগর উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর একই গ্রামের আ. সাত্তারের মেয়েকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দীর্ঘদিন যাবৎ ধর্ষন করে আসছে। নির্যাতিতা মেয়েটি হান্নানকে বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে নানা টালবাহানায় কালক্ষেপন করতে থাকে। গত বুধবার ধর্ষক হান্নানের বন্ধুর বাড়ি পাশ্ববর্তী জহুরিয়াকান্দা টেকপাড়া গ্রামের মল্লিক মিয়ার বাড়িতে তাদের আপত্তিকর অবস্থায় ধরে ফেলে এলাকাবাসী। এসময় এলাকাবাসি ও ধর্ষিতার পরিবার ধর্ষক হান্নানকে আটক করে বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে কৌশলে পালিয়ে যায়। বর্তমানে সে পলাতক রয়েছে। এ ঘটনায় স্থানীয় ভাবে ঘটনাটি সমাধানের চেষ্ঠা করছে বলে জানায় ধর্ষক রবিউলের মা।
ধর্ষিতার মা জমিলা খাতুন জানান, আমার মেয়েকে বিয়ের কথা বলে ২ বছর ধরে ধর্ষন করে আসছে লম্পট হান্নান মিয়া। আমি এ ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক বিচার ও শাস্তি চাই।
বেলাব থানার ওসি মো. ফকরুউদ্দীন ভূইয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। নির্যাতিতা ওই ছাত্রীকে মেডিক্যাল পরীক্ষা করার জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। আসামী পলাতক থাকলেও গ্রেফতারের চেষ্ঠা চলছে।

181 total views, 6 views today